পুঠিয়ারাজশাহী সংবাদ

পুঠিয়াতে বউ ফিরে পাওয়ার জন্য অনশন করছে স্বামী

স্টাফ রিপোর্টার: প্রেম করে বিয়ে করে বউ ফিরে পাওয়ার জন্য অনশন করছে স্বামী ঘটনাটি ঘটেছে রাজশাহীর পুঠিয়া উপজেলা শিলমাড়িয়া ইউনিয়ন এর গাড়াগাছি গ্রামে।গাড়াগাছি গ্রামের জসীম উদ্দীনের মেয়ে জেসমিন আক্তারের সাথে তাহেরপুর পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ডের শরিওত শাহ এর ছেলের ইমাম শাহ নাদেন প্রেম করে পালিয়ে বিয়ে করে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়। বিয়ে করে স্বামী স্ত্রী হিসেবে তারা তাহেরপুর পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ডে নিজ বাসায় অবস্থান করে।

বিয়ের ১ মাস পর মেয়ের বাবা জসিম উদ্দিন পারিবারিকভাবে তাদের কে মেনে ও নেয়। এরই ধারাবাহিকতায় গত, সোমবার তারা জামাই মেয়ে নিয়ে যায়, মেয়েকে কয়েক দিন কাছে রাখবে বলে জামাইকে বাসায় পাঠিয়ে দেন।বাসায় আসার পর ছেলে মেয়ের সঙ্গে কোন ভাবে যোগাযোগ করতে পারে না।

তারই ধারাবাহিকতায় গত বৃহস্পতিবার বিকেলে বড় মেয়ে জামাই ও স্বামী ইমাম শাহ লাদেন বউ কে নেবার জন্য তার শশুর বাড়িতে যায় এ সময় তাদেরকে বাসা থেকে বাহির করে গেট বন্ধ করে দেয়। কোন ভাবে তারা তাদের সাথে কথা বলতে না পেরে বাবা মাকে বলে, পরে তারা সেখানে ছুটে যান।

তারাও তাদের সাথে কথা বলতে পারে না খবর পেয়ে জামাইয়ের ছোট দুলাভাই রুহুল আমিন সোহাগ ঘটনা স্হলে পৌছে মেয়ে ভাত খাবে কি না তিনি মেয়ের মুখ থেকে শুনতে চায়।

সে বলে যদি মেয়ে ভাত না খায় তবে তাকে জোর করে তো ভাত খাওনা যাবে না সেটা বলেন।

কিন্তুু এমন আচরণ ঠিক না, কেন তাদের সাথে এমন করা হয়েছে তা এলাকায় লোকজনের কাছে জানতে চায়। কথা বলার এক  চরম উত্তেজনার সৃষ্টি হয়, খবর পেয়ে সাধনপুর ফাড়ির এস আই স্বপন মিয়া ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে, উভয় পক্ষের সঙ্গে কথা বলে তিনি আগামী শনিবার দুই পক্ষকে বসে সমস্যার সমাধান করতে বলেন। পরে সবাই সবার বাসায় চলে যান।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button