সংবাদ সারাদেশসারাদেশ

ভুল ওষুধে রোগী মৃত্যু, হাসপতাল ভাঙচুর

সংবাদ চলমান ডেস্ক: গাজীপুরের কালীগঞ্জে ভুল ওষুধে এক রোগীর মৃত্যুর অভিযোগে হাসপাতাল ভাঙচুর করেছে স্বজনরা। এ ঘটনায় হাসপাতালের দুই কর্মচারী আহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মো. মোবারক হোসেন কালীগঞ্জ পৌর এলাকার বড়নগর গ্রামের মোজ্জামেল হকের ছেলে।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায়, সকালে বুকে ব্যাথা নিয়ে মোবারক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসেন। এ সময় তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দিন আহমেদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যাওয়ার পরামর্শ দেন জরুরী বিভাগের চিকিৎসক ডা. মুশফিকুস সালেহীন। কিন্তু স্বজনরা তাকে বাড়ি নিয়ে যায়। ঘণ্টাখানেক পর ব্যাথা বাড়লে তাকে আবারো হাসপাতালে আনা হয়। এ সময় বিছানা থেকে পড়ে যান। একইসঙ্গে রক্তবমি করতে থাকেন। সঙ্গে সঙ্গে তাকে জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটে নেয়ার পরামর্শ দেয়া হয়। দুপুরে অ্যাম্বুলেন্সে করে ঢাকায় নেয়ার সময় তার মৃত্যু হয়। এরপর রোগীর স্বজনরা হাসপাতালের বিভিন্ন মালামাল ভাঙচুর করে। এ সময় দুই কর্মচারীও আহত হন।

নিহতের পরিবার জানায়, দ্বিতীয়বার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পর মোবারককে জরুরী বিভাগের চিকিৎসক তাকে একটি ওষুধ খাওয়ান। এরপরই তিনি বেড থেকে পড়ে গিয়ে রক্তবমি করেন। জরুরি ভিত্তিতে ঢাকায় নেয়ার সময় অবস্থা আরো খারাপ হলে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে নেয়া হয়। সেখান থেকে বলা হয় মোবারক অনেক আগেই মারা গেছেন।

কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমও ডা. সঞ্জয় দত্ত জানান, হাসপাতালের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে দোষীদের কয়েকজনকে শনাক্ত করা হয়েছে। তাদের নাম উল্লেখ করে মামলা করা হবে।

কালীগঞ্জ থানার ওসি একেএম মিজানুল হক জানান, হাসপাতাল ভাংচুরের ঘটনায় অভিযোগ পেয়েছি। মামলা হলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button