সারাদেশ

১০ লাশের জানাজা, হাহাকারের মাঝে মানুষের ঢল

চলমান ডেস্ক: নামগঞ্জে হবু বউকে আংটি পরাতে যাওয়ার সময় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ১০ জনের জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। এত মৃত্যুর হাহাকারের মাঝে তাদের জানাজায় মানুষের ঢল নামে। এরপর সাতটি লাশ দাফন করা হয়েছে।

শনিবার সকালে শাহি মহল্লা ও দেলপাড়া কবরস্থানে তাদের লাশ দাফন করা হয়। বাকি লাশ বরিশালে নেয়া হচ্ছে। ওই সময় স্বজনদের আহাজারিতে প্রকম্পিত হয়ে উঠে চারপাশ।

এর আগে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতাল থেকে নিহত ১০ জনের লাশ নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার পাগলা মুসলিমপাড়া-চিতাশালায় আনা হয়। এরপর সকাল সাড়ে ৮টা ও ৯টায় জানাজা শেষে শাহি মহল্লা কবরস্থানে আব্বাস উদ্দিন, ইমন, রাব্বী, রাজিব ও হাজী মহসীন ও দেলপাড়া কবরস্থানে সুমনা ও তার মেয়ে খাদিজার দাফন করা হয়। আর ইমরান, খলিল ও আসমার লাশ বরিশালে নিয়ে যাওয়া হয়।

কুতুবপুর ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন হাওলাদার বলেন, ব্যাংকে চাকরি করা প্রতিবেশী আব্বাস উদ্দিনের ছেলে কাতার থেকে দেশে এসেছিল। ছেলের বিয়ে পাকাপোক্ত করতে স্বজনসহ সুনামগঞ্জের উদ্দেশ্যে রওনা হন। কিন্তু হবিগঞ্জের তাদের বহন করা গাড়ি দুর্ঘটনার কবলে পড়ে হবু বর ইমন ও তার বাবাসহ ১০ জনের প্রাণহানি ঘটে। শনিবার ভোরে তাদের লাশ এলাকায় আনা হয়।

তিনি আরো বলেন, এত মানুষের একসঙ্গে জানাজায় কখনো অংশগ্রহণ করিনি। জানাজায় উপস্থিত মুসল্লিরা নিজেদের সামলাতে পারছিলেন না।

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার বাসিন্দা ইমনের পৈত্রিক নিবাস বরিশালে। সেখানকার স্বজনসহ সুনামগঞ্জে যাচ্ছিলেন তারা।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button