সংবাদ সারাদেশ

সন্ত্রাস দমনে যুক্তরাষ্ট্রের আরো মনোযোগী হওয়া দরকার-তথ্য মন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

বাংলাদেশে আল-কায়েদার উপস্থিতিনিয়ে এই  প্রসঙ্গে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যের জবাবে  আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সফল  তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‌‘বাংলাদেশে আল-কায়েদার কোনো উপস্থিতি নেই। যেকোনো দেশে সন্ত্রাসবাদ দমন আমাদের সম্মিলিত দায়িত্ব ও লক্ষ্য। যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান প্রেক্ষাপটে আমি মনে করি, তাদের অভ্যন্তরীণ সন্ত্রাস দমনে বেশি মনোযোগী হওয়া অবশ্যই  প্রয়োজন।’

আজ১৮ জানুয়ারী  সোমবার দুপুরে সচিবালয়ে তথ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলনকক্ষে সমসাময়িক ইস্যু নিয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যের বিষয়ে তীব্র প্রতিবাদ ও জানানো হয়েছে। বাংলাদেশে আল-কায়েদার কোনো উপস্থিতি নেই বলেও জানিয়েদেন তথ্যমন্ত্রী। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মতো একটি দেশে পররাষ্ট্রমন্ত্রী অজ্ঞতাপ্রসূত যখন এ বক্তব্য রাখেন, সেটি খুবই দুঃখজনক। সরকারের পক্ষ থেকে এর তীব্র প্রতিবাদ জানানো হয়েছে বলেও জানান তিনি।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমি মনে করি, আজকের বাস্তবতায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে যেভাবে সহিংসতা দেখা দিয়েছে, পার্লামেন্ট হামলা চালিয়ে সেখানে কয়েকজন নিহত হয়েছেন। আমাদের দেশে কিংবা ভারতে বা আশপাশে কোনো দেশে এভাবে পার্লামেন্টে যখন অধিবেশন চলছে তখন কি হামলা হয়েছে? হয়নি। এ আশঙ্কার কথা বলা হচ্ছে যেদিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট যখন শপথ গ্রহণ করবেন, এফবিআই তথ্য দিয়েছেন সেদিন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে সারাদেশব্যাপী সর্হিংসতা ছড়াতে পারে, বিক্ষোভ হয়ার সম্ভাবনা ও রয়েছে।’

অপর  প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের দেশে কিংবা ভারতে সংসদে অধিবেশন চলাকালে উত্তেজিত জনতা কি ইতিহাসে কখনও এভাবে হামলা চালিয়েছে, যেটি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে হয়েছে। সেই বিবেচনায় তো আমাদের সংসদে এ ধরনের কোনো হামলা হয়নি আমাদের দেশ অনেক ভাল। এ বিবেচনা থেকে যে উপসংহার আসে সেটি কি বলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের এখন তাদের অভ্যন্তরীণ সন্ত্রাস এবং বর্ণবাদ এ দুটি বিষয়ে আরও মনোযোগী হওয়া প্রয়োজন বলেও মনে করেন সফল তথ্য মন্ত্রী ।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button