জাতীয়

ব্যবস্থা নিয়ে জরিমানার রশিদ দেয়ার নির্দেশ: সার্জেন্টদের ট্রেনিং

সংবাদ চলমান ডেস্ক : বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮-এর বিভিন্ন ধারা সম্পর্কে ট্রাফিক পুলিশের কর্মকর্তাদের ট্রেনিং দেয়া হয়েছে। এ সময় কর্মকর্তাদের আইনভঙ্গকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়ে জরিমানার রশিদ দেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

শনিবার রাজধানীর রাজারবাগ  শিরুমিয়া মিলনায়তন, মিরপুরের পিওএম শহীদ এসআই (এবি) শাহজাহান মিলনায়তন, বনানীতে চলে এই ট্রেনিং কার্যক্রম।

ট্রেনিংয়ে ট্রাফিক বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি), অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (এডিসি), সহকারি পুলিশ কমিশনার (এসি), টিআই ও সার্জেন্টসহ প্রায় পাঁচশতাধিক কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

রাজারবাগের অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) মফিজ উদ্দিন আহম্মেদ সড়ক পরিবহন আইন- ২০১৮ লঙ্ঘনে কর্মকর্তাদের মামলা, জরিমানা আদায় ও আদায়কৃত জরিমানার টাকা ব্যাংকে জমাদান সংক্রান্তে দিক নির্দেশনা দেন। এছাড়াও আইন প্রসঙ্গে আলোচনাকালে তিনি বলেন, এই আইনের ১০৮ ধারা মোতাবেক জরিমানা আদায়ের রশিদ দিতে হবে ।

মিরপুরের ট্রেনিংয়ে উপস্থিত ট্রাফিক পশ্চিম বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার মো. জসীম উদ্দীন মোল্লা বলেন, গাড়ির বিরুদ্ধে প্রসিকিউশন দেয়া আমাদের প্রধান উদ্দেশ নয় বরং সড়কে শৃঙ্খলা বজায় রাখা আমাদের প্রধান লক্ষ্য ও উদ্দেশ। কোন গাড়ি যদি সড়ক পরিবহন আইন অমান্য করে বা ট্রাফিক আইন/সিগন্যাল অমান্য করে তাহলে উক্ত গাড়ি অথবা গাড়ির চালকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য নির্দেশনা প্রদান করেন।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button