পুঠিয়ারাজশাহী সংবাদ

পুঠিয়ায় লেগুনার সাথে এম্বুলেন্সের সংঘর্ষ: রোগীসহ আহত ৫

স্টাফ রিপোর্টার:
রাজশাহীর পুঠিয়ায় যাত্রীবাহী লেগুনার সাথে রোগীবাহী এম্বুলেন্সের সংঘর্ষ হয়েছে। এতে এম্বুলেন্সে থাকা রোগীসহ লেগুনার ৫ জন যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছেন।

আজ শুক্রবার বেলা সাড়ে ১২ টার দিকে ঢাকা রাজশাহী মহাসড়কের তারাপুর ঢালান নামক এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। আহতদের উদ্ধার করে তাৎক্ষণিক পুঠিয়া হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে লেগুনার দুই যাত্রীকে মুমুর্ষ অবস্থায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে।

এদের মধ্যে একজনের পা ভেঙ্গে গেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পবা হাইওয়ে পুলিশ শিবপুর ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) কাজল কুমার নন্দী। আহতদের মধ্যে তিনজনের নাম পরিচয় পাওয়া গেলেও দুজনের পরিচয় জানা যায়নি। আহত এম্বুলেন্স এর রোগী আবেদ আলী (৭০) তিনি নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলার বাসিন্দা রামেক হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে তিনি এম্বুলেন্সে করে রাজশাহী যাচ্ছিলেন। এছাড়াও লেগুনার যাত্রীরা হলেন, পুঠিয়ার ভাঙ্গুরপাড়া এলাকার বাসিন্দা ফজলুর রহমান (৪৫) এবং বাঘা উপজেলার নারী যাত্রী মিনা বিবি ৫০)। তবে লেগুনার আহত আরো দু’জনের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে কাজল কুমার নন্দী জানান, নাটোর থেকে ছেড়ে আসা রাজশাহী গামী একটি লেগুনা তারাপুর ঢালান নামক এলাকায় পৌছালে একইদিক থেকে আসা একটি রোগীবাহী এম্বুলেন্স লেগুনার পেছনে স্বজোড়ে ধাক্কা মারে। এতে লেগুনার পেছন দিকে বসে থাকা এক নারী যাত্রীসহ চারজন আহত হয়।

তিনি আরো জানান, সংঘর্ষের পর এম্বুলেন্সটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মহাসড়কের পাশে একটি গাছের সঙ্গে আবারো ধাক্কা খেয়ে আটকে পড়ে। এতে ওই রোগীও আহত হয়। পরে দ্রুত স্থানীয়রা গুরুতর আহতদের উদ্ধার করে পুঠিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেছে। সেখান থেকে দু’জনকে গুরুতর অবস্থায় রামেকে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার পর এম্বু্লেন্সের চালক পালিয়েছে। খবর পেয়ে হাইওয়ে পুলিশ গিয়ে গাড়ি দুটিকে আকট করে পুলিশ ফাঁড়িতে নিয়ে এসেছে। পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা পক্রিয়াধীন রয়েছে বলেও জানায় পুলিশ।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button