দূর্গাপুররাজশাহী সংবাদ

দুর্গাপুরে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ,থানায় মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক:
দুর্গাপুরে নবম শ্রেনির এক স্কুলছাত্রীকে (১৫) ধর্ষনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুধু তাই নয়, ধর্ষণের পর ওই স্কুলছাত্রী গর্ভবর্তী হয়ে পড়লে জোরপূর্বক ওষুধ সেবন করে তার পেটের বাচ্চা নষ্ট করে দিয়েছে ধর্ষক মাজেদুর রহমান। সে দুর্গাপুর পৌর এলাকার সিংগা গ্রামের মৃত আব্দুল কাদেরের পুত্র। ওই ঘটনায় স্কুলছাত্রীর মা বাদী হয়ে দুর্গাপুর থানায় ধর্ষণ মামলা দায়েরর করেছেন।
অভিযোগে জানা যায়, দুর্গাপুর পৌর এলাকার সিংগা গ্রামের মাজেদুর রহমান গত ১৩ আগস্ট ওই স্কুলছাত্রী বাড়ি ফাঁকা পেয়ে জোরপূর্বক তাকে ধর্ষণ করে। পরে বিষয়টি কাউকে না জানাতে স্কুলছাত্রীকে ভয়ভীতি দেখিয়ে মাজেদুর ওই স্কুলছাত্রীকে একাধিক বার তাকে ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে ওই স্কুলছাত্রী গর্ভবর্তী হয়ে পড়লে গত ১০অক্টোবর মাজেদুর তাকে গর্ভের সন্তান নষ্ট করতে জোরপূর্বক ওষুধ খাইয়ে দেন। পরে ওই স্কুলছাত্রী অসুস্থ হয়ে রক্তপাত শুরু হলে বিষয়টি তিনি তার পরিবারকে জানায়। সবশেষ গত ১৪নভেম্বর রাজশাহীর মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ওই স্কুলছাত্রীর (ডিনএনসি) করা হয়েছে।

দুর্গাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) খুরশীদা বানু কনা জানান, থানায় ধর্ষণের অভিযোগে এনে ওই স্কুলছাত্রীর মা বাদী হয়ে মামলা দায়েরর করেছেন। পুলিশ মামলার সুত্রধরে ওই ঘটনার তদন্ত করছেন। আসামী পলাতক থাকায় তাকে এখনও গ্রেপ্তার করা যায় নি। আসামীকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা অব্যহত রয়েছেন বলে জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button