রাজশাহী সংবাদ

চাকরির প্রলোভনে রাজশাহীতে তরুণীকে ছাত্রাবাসে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ১

নিজস্ব প্রতিবেদক:
চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে রাজশাহী নগরীর একটি ছাত্রাবাসে ২৫ বছরের এক তরুণীকে আটকে রেখে রাতভর গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এ অভিযোগে বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) বিকেলে ওই তরুণীর বাবা বাদী হয়ে মামলা করেছেন। ওই মামলায় দু’জনকে আসামি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় রাজপাড়া থানা পুলিশ সজিব রায়হান (২২) নামের একজনকে গ্রেফতার করেছে। তবে অপর আসামি পলাশ (২৩) পলাতক রয়েছেন। অভিযুক্ত এই যুবকদের বাড়ি রাজশাহীর তানোর উপজেলার শংকরপুর গ্রামে। পুলিশ পলাশকে গ্রেফতারের অভিযান শুরু করেছে।

জানতে চাইলে মহানগরীর রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহাদাত হোসেন জানান, বুধবার (৩০ অক্টোবর) দিবাগত রাতে মহানগরীর উত্তরা ক্লিনিকের মোড়ের ১৬ নম্বর বাড়িতে থাকা ছাত্রাবাসে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগীর বাবা আব্দুস সালাম বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) বিকেলে থানায় গিয়ে ধর্ষণের মামলা দায়ের করেন। পরে অভিযুক্ত সজিব রায়হানকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তবে পলাশ (২৩) নামের আরও এক আসামি পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

 

মহানগরীর রাজপাড়া থানার ওসি শাহাদাত হোসেন আরও জানান, চাকরির খোঁজে ওই তরুণী (২৫) পূর্ব পরিচিত ওই দুই যুবকের একজনকে ফোন দিলে তারা তাকে নতুন বিলশিমলা এলাকার ওই বাড়িতে থাকা ছাত্রাবাসে নিয়ে যায়। সেখানে তারা ওই তরুণীকে একটি কক্ষে আটকে রেখে রাতভর গণধর্ষণ করে। এরপর বৃহস্পতিবার দুপুর ১টার দিকে তরুণীর চিৎকারে স্থানীয়রা ওই ছাত্রাবাস থেকে এক যুবককে আটক করে রাজপাড়া থানায় খবর দেয়। পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়।

এছাড়া তরুণীকে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। পরে তাকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস (ওসিসি) সেন্টারে ভর্তি করা হয়। আজ শুক্রবার (১ নভেম্বর) সকালে তার ডাক্তারী পরীক্ষা সম্পন্ন করার কথা রয়েছে বলেও জানান রাজপাড়া থানার এ কর্মকর্তা।

এই ধরণের সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button